রেডিও ডয়েচেভেলের স্টাটাসের প্রতিক্রিয়া: মানুষের নিয়তি মিথ্যুক-ভন্ডদের হাতে জিম্মি!

redningsmannskap

জাহাঙ্গীর আলম আকাশ ।। আমার প্রিয় রেডিও ডয়েচেভেলের একটি রিপোর্টের প্রতি আমার দৃষ্টি পড়ে গেলো ফেইসবুকের কল্যাণে। জীবন বাস্তবতার কারণে এখন আর নিয়মিত রেডিও শোনা হয়ে ওঠে না। সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যম ফেইসবুক এখন ঘনিষ্ঠ বন্ধু। আর এই বন্ধুত্বের সুবাদে বিশ্বের প্রায় সব খবরই ভেসে ওঠে চোখের পর্দায়। ডয়েচেভেলের স্টাটাসটা এমন ” যুক্তরাষ্ট্রের ইলিনয় স্টেট বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক আলী রিয়াজ স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর বক্তব্যকে সার্বিক বিচারেই ‘আপত্তিকর এবং অপমানজনক’ বলে মন্তব্য করেছেন৷ আপনি কি তাঁর সঙ্গে একমত?”
আজকের লেখাটি এই স্টাটাসের ব্যক্তিগত প্রতিক্রিয়া হিসেবেই নেবেন প্রিয় পাঠক আমার।
গালগপ্প, বিশেষজ্ঞ মত শোনা জরুরি কী? নাকি কী করলে পোশাক কারখানাগুলি বাঁচবে, শ্রমিক ন্যায্য মজুরি ও জীবনের নিরাপত্তা পাবেন,আর কোন ভবন অবৈধভাবে নির্মিত হবে না, আর কোন কারখানায় আগুন লাগবে না, ধ্বসে পড়বে না, কেউ গাড়ি ভাংচুর, গাড়িতে আগুন বা কারখানায় আগুন ও ভাংচুর করবে না, কিভাবে হাসিনা-খালেদারা সত্য বলার অভ্যাস, সহনশীল হবার শক্তি অর্জন করতে পারেন, কিভাবে গণতান্ত্রিক রাজনীতি, জনআকাঙ্খার পরিসর বাড়ানো যায়- বিষয়গুলি নিয়ে কার্যকর অনুসন্ধান, দলনিরপেক্ষ (নয় হাসিনা, নয় খালেদা, শুধু সত্য, মানুষ, মানবতার পক্ষে) মতামত-বিশ্লেষণ দরকার?

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রির বক্তব্য যে কান্ডজ্ঞানহীন তা নিরুপণের জন্যও নামজাদা অধ্যাপক, এক্সপার্ট হবারও লাগে না, এটা দেশের সব মানুষেই বুঝতে পেরেছেন, কারণ একদল মানুষের ঝকাঝকিতে অতবড় একটা ভবন ভাঙে পড়ার মত ফালতু ও আজগুবি গল্প কেবল বাংলাদেশের ক্ষমতালোভী, শয়তান রাজনীতিক, ভন্ড, জ্ঞানপাপীরাই ছড়াতে পারে! আর নিজ দলের কেউ কোন অপরাধ করলে কেবল বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রি পর্যায়ের মিথ্যুকরাই সংসদে গিয়ে বিরোধীদলকে গালমন্দ, তাদের ওপর দোষারোপ আর ও আমার দলের নয় যে দলেরই হোক তার শাস্তি হবে এমন বেহায়াপনা বক্তব্য দিতে কোন রকমের লজ্জাবোধও করে না।

বাঙালি/বাংলাদেশী বা বাংলার মানুষের নিয়তি যেন এমন মিথ্যুক-ভন্ডদের হাতেই জিম্মি হয়ে গেছে। প্রকৃতি যেন এই জিম্মিদশাকেই ভালোবাসার জন্য সোনার বাংলার সহজ-সরল খেটে খাওয়া মানুষগুলিকে বাধ্য করেই চলবে নিরন্তর!

আর মুনাফালোভী, গরীবের শ্রমের মূল্য হরণকারি খুনিরা সরকারের কালো পোশাক আর কালো চশমার নিচে লুকিয়ে থাকে চিরকাল! ১৬ কোটি বলেন, ৩২ কোটি বলেন আর গোটা পৃথিবীর সব চোখ এক হলেও এইসব খুনিকে ধরা যাবে না, কারণ রাষ্ট্র এই খুনিদের লালনকর্তা, আশ্রয়দাতা! ছবিটা গুগল থেকে নেয়া।

Advertisements

Leave a Reply

Please log in using one of these methods to post your comment:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / পরিবর্তন )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / পরিবর্তন )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / পরিবর্তন )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / পরিবর্তন )

Connecting to %s